রাজ্য

সিআইডির ম্যারাথন জেরায় কাহিল হয়ে পড়ছেন বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষ

নজরে বাংলা, পশ্চিম মেদিনীপুর : সিআইডির ম্যারাথন জেরায় কাহিল হয়ে পড়ছেন বিজেপি প্রার্থী ভারতী ঘোষ ৷ জেলার প্রাক্তন পুলিশ সুপারের বিরুদ্ধে সোনা প্রতারণা মামলা সহ একাধিক মামলা রয়েছে ৷ পরপর সিআইডির জেরায় মুষড়ে পড়েছেন তিনি ৷ তাই এখন রাজ্য নেতৃত্বের স্মরণাপন্ন হয়েছেন তাঁকে উদ্ধার করার জন্য ৷ জেরায় সন্তুষ্ট না হওয়ায় আগাম নোটিশ দিয়ে শুক্রবারের পর সোমবারও তাঁকে জেরা করে সিআইডি ৷
তাঁর অস্থায়ী ঠিকানায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সিআইডি-র ডেপুটি সুপার শঙ্কর ভট্টাচার্য নোটিশ পাঠান ৷ সেই নোটিশে লেখা ছিল সোমবার সিআইডির দল তাঁকে জেরা করতে আসবে ৷ সেইমতো এদিন সকাল ১০ টা নাগাদ সিআইডির স্পেশাল সুরিন্টেন্ডেন্ট ইন্দ্রনারায়ণ চক্রবর্তী ও এক ডেপুটি সুপারের (মহিলা আইপিএস) নেতৃত্বে ১৬ জনের দল দাসপুরের বাড়িতে আসেন ৷ সকাল সাড়ে ১০ টা থেকে দফায় দফায় জেরা শুরু হয় ৷ পুরো জেরা পর্ব ক্যামেরাবন্দি করা হয় সিআইডির পক্ষ থেকে ৷ সন্ধ্যে পর্যন্ত জেরা চলে ৷ তদন্তকারী সিআইডি আধিকারিকরা বেরানোর সময় সাংবাদিকদের সামনে এবিষয়ে মুখ খুলতে চাননি ৷ তবে আভাস মিলেছে পুনরায় তাঁরা আসতে পারেন ৷

এদিন বিকেলেই ভারতী ঘোষের অস্থায়ী বাড়িতে চলে আসেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু৷ সিআইডির দল বেরিয়ে যাওয়ার পর প্রার্থীকে পাশে বসিয়ে তিনি বলেন , ‘ সিইআইডি জেরার নামে তাঁর প্রচার বন্ধ করতে চাইছে ৷ তাঁরা বিষয়টি নিয়ে নির্বাচন কমিশন ও সুপ্রিম কোর্টে যাবেন৷ জানতে চাইবেন জেনে বুঝেই একজন প্রার্থীকে আটকাতে চাইছে রাজ্যের সিআইডি’।
ভারতী দিনভর সিআইডির জেরার মুখে বসলেও তাঁর প্রচার যে আটকে নেই সে কথা স্বীকার করে সায়ন্তন বলেন, ‘ভারতীর হয়ে দল প্রচার চালাবে ৷ কার্যকর্তারা গ্রামে গ্রামে গিয়ে মানুষকে বলবেন, বিজেপি প্রার্থীকে ঠেকাতে সিআইডি পাঠিয়ে হেনস্তা করছে রাজ্য সরকার ৷’

Share this:

NB

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *